Homehistoryপৃথিবীর শেষ রাস্তা!!! এইখানে কারোর একা যাওয়া নিষিদ্ধ!!!

পৃথিবীর শেষ রাস্তা!!! এইখানে কারোর একা যাওয়া নিষিদ্ধ!!!

প্রাকৃতিক সৌন্দর্যে ভরপুর এই দেশ নরওয়েতে একটি রাস্তা অবস্থিত রয়েছে যাকে বলা হয় পৃথিবীর শেষ রাস্তা।

আপনি যদি এই রাস্তা ধরে হাঁটেন তাহলে আপনি খুব সহজেই উত্তর মেরুর স্তলের কাছে পৌঁছে যেতে পারেন।

আর এই কারনেই এই রোড থেকে বলা হয় ‘দ্যা লাস্ট রোড অফ দ্যা ওয়ার্ল্ড’।

তবে এই রাস্তার আসল নাম হল ‘ই সিক্সটি নাইন হাইওয়ে‘।

রাস্তার পাশের দৃশ্য দেখে আপনার মনে হতে পারে আপনি পৃথিবীর শেষ প্রান্তে চলে এসেছেন।

তবে এই রাস্তা দিয়ে একা একা যাওয়া সম্পূর্ণভাবে নিষিদ্ধ।

বিশেষ ভৌগলিক অবস্থানের জন্য অনেক মানুষেরই এই রাস্তাকে ঘিরে অনেক প্রশ্ন রয়েছে।

আজ আপনাদের এই রাস্তার সম্পর্কে আলোচনা করবো।

‘ই সিক্সটি নাইন হাইওয়ে’ দিয়ে আপনি যতই এগোবেন ততই মনে হবে আপনি যেন পৃথিবীর শেষ প্রান্তে চলে এসেছেন।

এও মনে হবে যে এই বোধয় শেষ আর বোধহয় এগোনো যাবে না।

উল্লেখিত এই রাস্তাটি নরওয়ের সাথে উত্তর মেরুর সংযোগ স্থাপন করেছে।

the-last-road-in-the-world--no-one-is-allowed-to-go-here-alone

এই রাস্তাটি শুরু হয়েছে নরওয়ের Olderfjord আর শেষ হয়েছে ইউরোপের সর্ব উত্তরের স্থান North Cape-এতে।

উল্লেখিত এই রাস্তাটির দৈর্ঘ্য ১২৯ কিলোমিটার, এই রাস্তাটির ৫টি সুড়ঙ্গ পথ রয়েছে। এই সুড়ঙ্গগুলির দৈর্ঘ্য ১৫.৫ কিলোমিটার।

এই প্রত্যেকটি সুড়ঙ্গের মধ্যে নর্থ কেপ টানেলের দৈর্ঘ্যই হল ৬.৯ কিলোমিটার। যা সমুদ্রপৃষ্ঠ থেকে ৬৯৬ ফুট গভীর পর্যন্ত পৌঁছেছে।

আন্তর্জাতিক মহাসড়কগুলির মধ্যে ‘ই সিক্সটি নাইন হাইওয়ে’ হল পৃথিবীর সবচেয়ে উত্তরের রাস্তা। আর এটি ই রোড নেটওয়ার্কের অন্তর্ভুক্ত।

মূলত এই রাস্তাটির পরিকল্পনা করা হয়েছিল ১৯৩০ এর দশকে। যদিও নর্থ কেপের সাথে সড়ক সংযোগ চালু হয় ১৯৫৬ সালে।

আর বর্তমানে এই রোডটির নাম ঠিক করা হয় ১৯৯২ সালে। যদিও তার আগেই এই রোডটির নাম ছিল ‘রোড ৯৫’।

সেই সময় রাস্তার পাশে থাকা জলাধার গুলো পারাপার করার জন্য ফেরির সাহায্য নেওয়া হতো।

এরপর ২০১২ সালে ফেরির পরিবর্তে নর্থ কেপ সুড়ঙ্গ সহ বিভিন্ন সুরঙ্গ গুলি চালু করা হয়।

তবে এসবের মাঝে সবচেয়ে অবাক করা বিষয় হলো এ রাস্তায় একা যাতায়াত করা একেবারেই নিষিদ্ধ।

এই রাস্তা দিয়ে চলাফেরা করার জন্য অনেক আগে থেকে আপনাকে অনুমতি নিতে হবে।

শীতকালে এই রাস্তার অবস্থা এবং আবহাওয়া দেখে রাস্তা দিয়ে যাতায়াত করার অনুমতি দেওয়া হয়।

যদিও সেই ক্ষেত্রে বেশ কয়েকটি গাড়ি একত্র হওয়ার পরই অনুমতি দেওয়া হয়।

অনেকের মতে এই রাস্তায় তীব্র হওয়া এবং ঠাণ্ডা অনুভূতি হয় তাই কখন এই রাস্তায় কী ঘটে তা আগে থেকে বলা অসম্ভব।

ঝড়-বৃষ্টি তুষারপাতের মতন একাধিক ধরণের জিনিসপত্র এখানে হামেশাই ঘটে থাকে,

এমনকি গ্রীষ্মকালেও এখানে প্রচুর পরিমাণে তুষারপাত দেখা যায়।

রাস্তাটি যতই সমুদ্রের কাছে পৌঁছতে থাকে ততই এর অনিশ্চিয়তা বাড়তে থাকে।

the-last-road-in-the-world--no-one-is-allowed-to-go-here-alone

শীতকালে যদিও রাস্তাটির সর্ব উত্তরের অংশটি সম্পূর্ণভাবে বন্ধ করে দেওয়া হয়।

‘ই সিক্সটি নাইন হাইওয়ে’-র প্রতিটি রাস্তাই কমবেশি এক রকমের দেখতে হয়।

তবে কোনো কোনো অংশে আবার ছোটখাটো পাহাড়ও দেখা যেতে পারে।

এমনকি আপনি রাস্তার ধারে কিছু গ্রাম দেখতে পেতে পারেন।

এগুলি এতটাই ছোট যে এগুলিকে গ্রাম না বলে জনসাধারণ বসতি বলা যেতে পারে।

এই পৃথিবীর শেষ রাস্তাটি যেখানে অবস্থিত রয়েছে সেখানে বছরের ৬ মাস দিন এবং বাকি ৬ মাস রাত।

শীতকালে সময় এখানকার তাপমাত্রা নেমে আসে -৪৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত নিচে। অন্যদিকে আবার গ্রীষ্মকালে এখানকার তাপমাত্রা থাকে ০ ডিগ্রীর আশেপাশে।

প্রত্যেক বছর গ্রীষ্মকালে কমপক্ষে প্রায় ২ লক্ষ মানুষ এই রাস্তা ধরে নর্থ কেপ শহরে ঘুরতে যান।

কারণ এখানে বিরল প্রজাতির মতন অনেক ধরনের দৃশ্য দেখতে পাওয়া যেতে পারে।

পৃথিবীর এই শেষ রাস্তার মতো নরওয়েতে একটি জায়গা রয়েছে যেটিকে পৃথিবীর শেষ প্রান্ত হিসেবে গণ্য করা হয়।

উল্লেখিত এই জায়গাটির নাম হল ‘Preikestolen’,

আপনি যদি এই জায়গাটিতে যান তাহলে আপনার মনে হতে পারে আপনি পৃথিবীর যে জায়গাটিতে এসে দাঁড়িয়েছেন।

আজকে আপনাদের কি এই পৃথিবীর শেষ রাস্তার সাথে পরিচয় করিয়ে দিলাম।

যদি আমাদের আর্টিকেলটি ভালো লেগে থাকে তাহলে অবশ্যই লাইক, কমেন্ট, শেয়ার করবেন।

নিত্য প্রতিদিন এমন বিভিন্ন ধরণের ইন্টারেস্টিং আর্টিকেল পেতে হলে অবশ্যই আমাদেরকে ফলো করবেন।

আরো পড়ুন : বিউটি প্রোডাক্টস রিভিউ : গুড ভাইপ্স রোজ হিপ রেডিয়েন্ট গ্লো ফেস সিরাম

RELATED ARTICLES

মাঝরাতে আয়নার সামনে Bloody Mary বলেছেন? আসল কাহিনী জানেন...

মাঝরাতে আয়নার সামনের দাঁড়িয়ে 'ব্লাডি ম্যারি' (Bloody Mary) কথাটি তিনবার বললে ঘটবে ভূতুড়ে কান্ড!...

পুনর্জন্মে বিশ্বাস করেন? ১৯৩০ সালের এই ঘটনা আপনাকে হতবাক...

পুনর্জন্ম (Rebirth) কথাটা সকলেরই জানা। কিন্তু এর উপর বিশ্বাস হাতে গোনা কিছু জনেরই রয়েছে।...

কৈলাস পর্বতে স্যাটেলাইট লাগিয়ে কিদৃশ্য দেখে চমকে গেলেন নাসা...

কৈলাস পর্বতে র নাম সবার জানা হিন্দুদের মতে এই কৈলাস পর্বতে দেবাদিদেব মহাদেব বিরাজমান।...

পৃথিবীর শেষ রাস্তা!!! এইখানে কারোর একা যাওয়া নিষিদ্ধ!!!

প্রাকৃতিক সৌন্দর্যে ভরপুর এই দেশ নরওয়েতে একটি রাস্তা অবস্থিত রয়েছে যাকে বলা হয় পৃথিবীর...

বিউটি প্রোডাক্টস রিভিউ : গুড ভাইপ্স রোজ হিপ রেডিয়েন্ট...

আজকে আমরা মূলত কথা বলবো গুড ভাইপ্স রোজ হিপ রেডিয়েন্ট গ্লো ফেস সিরাম সম্পর্কের...

প্রথমবার যৌন মিলনের পরে মেয়েদের শারীরিক কী কী পরিবর্তন...

প্রথমবার যৌন মিলনে লিপ্ত হওয়ার পরে মেয়েদের শারীরিক কিছু পরিবর্তন ঘটতে পারে সে বিষয়ে...